| বিকাল ৩:১০ - শনিবার - ১৩ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ - ২৯শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ - ১৪ই মহর্‌রম, ১৪৪৪ হিজরি

ফুলবাড়ীয়া রয়েল কলেজে অভিভাবকদের সাথে মত বিনিময়

 

ফুলবাড়ীয়া ব্যুরো : ০৩ আগস্ট ২০১৫, বৃহস্পতিবার,

আজ  বৃহস্পতিবার ফুলবাড়ীয়া রয়েল কলেজে অভিভাবকদের সাথে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বাংলা ও কৃষিশিড়্গা বিভাগের প্রভাষক মাহমুদা আক্তার ও জোবাইদা নাহিদ নিপা এর যৌথ পরিচালনায় এতে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন কলেজের অন্যতম পরিচালক এ্যাডভোকেট আতাহার হোসেন চৌধুরী সবুজ। সভায় সভাপতিত্ব করেন কলেজ অধ্যড়্গ হুসাইন মুহাম্মদ জোবায়ের।
এতে প্রধান বক্তা হিসেবে আলোচনা রাখেন সহকারি অধ্যাপক ও অন্যতম পরিচালক হাফেজ মো: রুহুল আমীন। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন ইঞ্জিনিয়ার শাফায়েত আবদীন। অভিভাবকদের পক্ষ থেকে বক্তব্য রাখেন মো: সুলতার আহমেদ, রাম রায়, গোলাম মোস্তফা প্রমূখ।
চলতি বছর ২৯ আগস্ট থেকে ১ সেপ্টেম্বর চারদিনব্যাপী বিজ্ঞান, মানবিক ও ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগে মাসিক পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। গত ৩ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার রেজাল্ট প্রকাশিত হয়। রেজাল্ট পেয়ে ছাত্র-ছাত্রীরা আনন্দিত। অভিভাবকদের ডেকে তাদের সামনে রেজাল্ট প্রকাশ করায় তারাও উদ্বেলিত। অভিভাবকগণ তাদের বক্তব্যে বলেন, “ফুলবাড়ীয়ায় রয়েল কলেজ ইতোমধ্যেই আমাদের নজর কেড়েছে। আমাদের যেসব ছেলে-মেয়েরা এসএসসিতেতেও নিয়মিত পড়ালেখা করতো না তারাও এখন সন্ধার পরে পড়ার টেবিলে বসছে, পড়ছে।”
শিড়্গকদের পড়্গ থেকে বক্তব্যে ইংরেজি বিভাগের প্রভাষক মো: সাইফুল ইসলাম বলেন- “আপনারা অভিভাবক যদি ছেলে-মেয়েদেরকে প্রতিদিন কলেজ পর্যনত্ম পৌঁছানোর দায়িত্ব নেন তবে আমরা তাদেরকে এ পস্নাস পাওয়ানোর দায়িত্ব নিলাম।”
প্রধান বক্তা অধ্যাপক রম্নহুল আমীন বলেন- “অতি অল্প সময়ে আমার এই কলেজের সকল আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শেষ করেছি এখন বাকীটা হবে ছাত্র-শিড়্গক ও অভিভাবকদের সমন্বয়ে। সময়ের ব্যবধানে ফুলবাড়ীয়া রয়েল কলেজে ছাত্র-ছাত্রীদেরকে ইন্টারভিউ দিয়ে ভর্তি হতে হবে ইনশা’আলস্নাহ।”
প্রধান অতিথি এ্যাডভোকেট আতাহার হোসেন চৌধুরী সবুজ বলেন- “রয়েল কলেজ ফুলবাড়ীয়ায় এক নতুন দিগনেত্মর উন্মোচন করবে। ছাত্র-ছাত্রী ও অভিভাবকদের সম্মিলিত প্রচেষ্টায়ই সেটা সম্ভব।”
সভার সভাপতি ও রয়েল কলেজের অধ্যক্ষ হুসা্‌ইন মুহাম্মদ জোবায়ের বলেন- “অনেক স্বপ্ন ও আশা নিয়ে আমরা যাত্রা শুরম্ন করেছি।“তিনি অভিভাবক ও ছাত্র-ছাত্রীদেরকে কলেজ পরিবারের সদস্য হিসেবে উলেস্নখ করেন। তিনি বলেন- “গার্জিয়ানগণ যে কোন সময় যে কোন পরামর্শ নিয়ে আমাদের সামনে হাজির হবেন। এই কলেজের শিক্ষকগণ ছাত্র-গার্জিয়ানদের কাছে যে কোন জবাবদিহি করতে সর্বদা প্রস্তুত।” অনুষ্ঠানে তিন বিভাগে প্রথম স্থান অধিকারীদের মধ্যে শিক্ষা উপকরণ বিতরণ করা হয়।

সর্বশেষ আপডেটঃ ৬:২৮ অপরাহ্ণ | সেপ্টেম্বর ০৩, ২০১৫