| রাত ৮:১২ - রবিবার - ২৫শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ - ১২ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ - ১৪ই শাবান, ১৪৪৫ হিজরি

৯ জুলাই থেকে ট্রেনের ঈদের অগ্রিম টিকেট

অনলাইন ডেস্ক, ৬ জুলাই ২০১৫, সোমবার,
 পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে ঘরমুখী যাত্রীদের যাতায়াতের সুবিধার্থে বাংলাদেশ রেলওয়ে আগামী ৯ জুলাই বৃহস্পতিবার থেকে অগ্রিম টিকেট বিক্রি শুরু করবে।

রেলওয়ে সূত্র জানায়, ৯ জুলাই ১৩ জুলাইয়ের যাত্রার, ১০ জুলাই ১৪ জুলাইয়ের যাত্রার, ১১ জুলাই ১৫ জুলাইয়ের যাত্রার, ১২ জুলাই ১৬ জুলাইয়ের যাত্রার এবং ১৩ জুলাই ১৭ জুলাইয়ের যাত্রার টিকেট বিক্রি করা হবে।
সূত্র জানায়, একজন যাত্রীকে সর্বাধিক ৪টি টিকেট দেয়া হবে এবং বিক্রিত টিকেট ফেরত নেয়া হবে না।
বাংলাদেশ রেলওয়ে পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে ঈদের ৩ দিন (১৫ থেকে ১৭ জুলাই) এবং ঈদের পরে সাতদিন (২০-২৬ জুলাই চাঁদ দেখার উপর নির্ভরশীল) পাঁচজোড়া এবং পবিত্র ঈদের দিন সোলাকিয়া স্পেশাল ২ জোড়াসহ মোট ৭ জোড়া ট্রেন চালু করবে। ট্রেনগুলো হচ্ছে- ঢাকা-দেওয়ানগঞ্জ-ঢাকা রুটে দেওয়ানগঞ্জ স্পেশাল, চট্টগ্রাম-চাঁদপুর-চট্টগ্রাম রুটে দু’জোড়া চাঁদপুর স্পেশাল, পার্বতীপুর-ঢাকা-পার্বতীপুর রুটে পার্বতীপুর স্পেশাল এবং খুলনা-ঢাকা-খুলনা রুটে খুলনা স্পেশাল ট্রেন চলাচল করবে।
পবিত্র ঈদের দিন ভৈরব-কিশোরগঞ্জ-ভৈরব এবং ময়মনসিংহ-কিশোরগঞ্জ-ময়মনসিংহ রুটে সোলাকিয়া এক্সপ্রেস ট্রেন চলাচল করবে।
আগামী ১৩ জুলাই থেকে ঈদের আগের দিন পর্যন্ত আন্তঃনগর ট্রেনের কোন বিরতি থাকবে না।
যাত্রীদের যাতায়াতের সুবিধার্থে বাংলাদেশ রেলওয়ে চলমান ট্রেনগুলোর সঙ্গে ১৬৯টি যাত্রীবাহী অতিরিক্ত কোচ সংযোজন করবে। এ সময় কারখানায় মেরামত করে ২৫টি অতিরিক্ত ইঞ্জিন সরবরাহ করা হবে।
উল্লেখ্য, বর্তমানে বাংলাদেশ রেলওয়েতে প্রতিদিন প্রায় ১ লাখ ৮০ হাজার যাত্রী পরিবহন করা হয়ে থাকে।
পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে প্রতিদিন প্রায় ২ লাখ ৫০ হাজার যাত্রী পরিবহনের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।
বাংলাদেশ রেলওয়ের কর্তৃপক্ষ টিকেট কালোবাজারী প্রতিরোধে পর্যাপ্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে। (বাসস) :

সর্বশেষ আপডেটঃ ১০:০৮ অপরাহ্ণ | জুলাই ০৬, ২০১৫