| রাত ৮:২৪ - বুধবার - ৩রা আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ - ১৯শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ - ৪ঠা মহর্‌রম, ১৪৪৪ হিজরি

ধাওয়ানকে ফেরালেন মাশরাফি

অনলাইন ডেস্ক,২৪ জুন ২০১৫, বুধবার:

ভারতের ওপেনার শিখর ধাওয়ানকে ফেরালেন মাশরাফি। দলীয় ২৭তম ওভারে মাশরাফির বলে নাসির হোসেনের তালুবন্দি হন ধাওয়ান। আউট হওয়ার আগে তিনি ৭৫ রান করেন।
২৭ ওভারে তিন উইকেট হারিয়ে ভারতের সংগ্রহ ১৫৮ রান।
ভারতের দলপতি ধোনি ২৪ রানে অপরাজিত।
তৃতীয় ও শেষ ম্যাচে জয় নিয়ে দেশে ফিরতে মরিয়া সফরকারীদের ব্যাটিং লাইনআপে যথারীতি আঘাত হানেন মুস্তাফিজ। মুস্তাফিজের করা দলীয় সপ্তম ওভারের শেষ বলে উইকেটের পেছনে লিটনের হাতে ক্যাচ দেন রোহিত শর্মা। প্রথম দুই ওয়ানডেতেও মুস্তাফিজের বোলিং তোপে রোহিত আউট হয়েছিলেন। আউট হওয়ার আগে রোহিত ২৯ বলে দুই চার আর এক ছয়ে ২৯ রান করেন।
দলীয় ২০তম ওভারে আক্রমণে আসেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। তার অসাধারণ ঘূর্ণিতে আউট হন ভারতের ব্যাটিং স্তম্ভ বিরাট কোহলি। নিজের প্রথম ওভারে এসেই বাজিমাত করেন সাকিব। বোল্ড হয়ে সাজঘরে ফেরার আগে কোহলি করেন ৩৫ বলে ২৫ রান।
মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে উত্তেজনা ছড়ানো এ ম্যাচে টস জিতে বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা আগে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেন। সফরকারী ভারতের বিপক্ষে বাংলাদেশের টাইগাররা ‘বাংলওয়াশ’ নিশ্চিত করার লক্ষ্যে মাঠে নামে।
টাইগারদের বোলিং সূচনা করতে আসেন ক্রিকেট বিশ্বের বোলিং চমক মুস্তাফিজুর রহমান। আর ভারতের ব্যাটিং উদ্বোধনের দায়িত্ব নিয়ে ব্যাট হাতে নামেন রোহিত শর্মা এবং শিখর ধাওয়ান।
এক ম্যাচ হাতে রেখেই টাইগাররা সিরিজ নিশ্চিত করেছে। কাগজে-কলমে এগিয়ে থাকা ভারতের বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডেতে ৭৯ রানে আর দ্বিতীয় ওয়ানডেতে ৬ উইকেটের জয় তুলে নেয় মাশরাফি বাহিনী। বদলে যাওয়া টাইগারদের এবারের লক্ষ্য টিম ইন্ডিয়াকে ‘বাংলাওয়াশ’ উপহার দেওয়া।
তবে, এক ম্যাচ হাতে রেখে সিরিজ জয় (২-০) করে তৃপ্তির ঢেঁকুর গিলছে না স্বাগতিকরা। ২-০ তে সিরিজ হারলে দল তৃতীয় ম্যাচ জয়ের জন্য যেভাবে মরিয়া হয়ে খেলতো, সে মনোভাব নিয়েই তৃতীয় ওয়ানডেতে মাঠে নেমেছে টাইগাররা।

সর্বশেষ আপডেটঃ ৫:১৬ অপরাহ্ণ | জুন ২৪, ২০১৫