| রাত ১২:০৬ - বৃহস্পতিবার - ১১ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ - ২৭শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ - ১২ই মহর্‌রম, ১৪৪৪ হিজরি

অবশেষে সমাবর্তন হচ্ছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে

অনলাইন ডেস্ক | ২৫ মে ২০১৫, সোমবার,
অবশেষে সমাবর্তনের স্বপ্নপূরণ হচ্ছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের। প্রায় ২১ লাখ শিক্ষার্থীদের দীর্ঘদিনের দাবি ছিল দেশের অন্যান্য পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের ন্যায় জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়েরও সমবর্তন হওয়া। সেই পরিপ্রেক্ষিতে আগামি বছরের (২০১৬) নভেম্বর অথবা ডিসেম্বর মাসে সমবর্তন করতে যাচ্ছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। আজ  সোমবার জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাকাডেমিক কাউন্সিলের ৮২তম সভায় এ সিদ্ধাত্ম গ্রহণ করা হয়।
জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম সমাবর্তন ছাড়াও সভায় আরো বেশকিছু গুরম্নত্বপূর্ণ সিদ্ধাত্ম গ্রহণ করা হয়। এর মধ্যে, আসছে ২০১৫-২০১৬ শিক্ষাবর্ষের অনার্স প্রথম বর্ষের ভর্তি কার্যক্রম আগামি ১ অক্টোবর শুরম্ন করা সিদ্ধাত্ম নেয়া হয়েছে। সেই সঙ্গে চলতি বছরের ডিসেম্বর মাসেই জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন কলেজে অনার্সের ক্লাস শুরম্ন করা হবে। এর ফলে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সেশনজট কমে আসবে বলে সভায় মত্মব্য করেন উপাচার্য।
এসবের সঙ্গে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের গাজীপুরস’ মূল ক্যাম্পাসে দেড় বছর মেয়াদি ‘মাস্টার অব অ্যাডভান্সড স্ট্যাডিজ ইন লাইব্রেরি অ্যান্ড ইনফরমেশন সায়েন্স’ বিষয়ে স্পেশাল মাস্টার্স ডিগ্রি প্রোগ্রাম চালু করারও সিদ্ধানত্ম নেয়া হয়েছে ওই সভায়। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় অ্যাকাডেমিক ভবনের সিনেট হলে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. হারম্নন-অর-রশিদ সভায় সভাপতিত্ব করেন। এতে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ উপাচার্য অধ্যাপক ড. আসলাম ভূঁইয়া, অধ্যাপক ড. মুনাজ আহমেদ নূর, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক মো. নোমান উর রশীদ ও ডিনরা উপসি’ত ছিলেন। একাডেমিক কাউন্সিলের এ সভায় ইউআইটিসি’র উপ উপাচার্য অধ্যাপক ড. কে এম সাইফুল ইসলাম খান, টিচার্স ট্রেনিং সেন্টারের অধ্যক্ষ অধ্যাপক স্বপন কুমার ঢালী, ইডেন মহিল কলেজের উপাধ্যড়্গ অধ্যাপক ড. ডালিয়া আহমেদসহ জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত বিভিন্ন কলেজের অধ্যক্ষ, উপাধ্যক্ষ ও শিক্ষাবিদরা উপসি’ত ছিলেন। প্রসঙ্গত, দেশের পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর উপর চাপ কমাতে ১৯৯২ সালে সরকার জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় চালু করে।এফএনএস:

সর্বশেষ আপডেটঃ ১১:০৯ অপরাহ্ণ | মে ২৫, ২০১৫