| রাত ৯:১৭ - বুধবার - ২৮শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ - ১৫ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ - ১৭ই শাবান, ১৪৪৫ হিজরি

মুক্তাগাছায় গভীর নলকূপে তালা দেওয়ায় ৬০ একর জমি অনাবাদি

সিরাজুল হক সরকার,মুক্তাগাছা প্রতিনিধি:  মুক্তাগাছায় সালিশের সিদ্ধানত্ম অমান্য করে গভীর নলকূপে তালা দেওয়ায় ৬০ একর জমিতে সেচ দিতে পারেনি এলাকাবাসী। এতে প্রায় ৬১ কৃষক পরিবার বোরো আবাদ থেকে বঞ্চিত হয়েছে। দেশে অধিক ফসল ফলাও কর্মসূচীতেও ব্যাঘাত ঘটেছে।
সূত্র মতে , কাশিমপুর ইউনিয়নের পাইকড়া গ্রামের ৩৫৪ নং গভীর নলকূপটি ম্যানেজার লোকমান হোসেন সরকার সুষ্ঠূভাবে পরিচালনা করে আসছিল। কিন’ সমিতির সদস্য আতাব আলী নয়ন গংরা প্রতিহিংসা বশতঃ সমিতির গভীর নলকূপ ঘরে তালা লাগিয়ে দেয়। এ ব্যাপারে লোকমান হোসেন ইউপি চেয়ারম্যান বরাবর অভিযোগ করলে পরিষদের পক্ষ থেকে সালিশ বসে। সালিশে এলাকায় শানিত্ম বিনষ্ঠ হওয়াসহ উৎপাদন ব্যাহত আশংকায় বিদ্ধমান থাকায় দ্র”ত জনস্বার্থে গভীর নলকূপটি চালু করার সিদ্ধানত্ম গৃহিত হয়। সালিশে বিনাশর্তে গভীর নলকুপের চাবি হসত্মানত্মর ও সামাজিক নিরাপত্তা বিধানসহ সেচ কার্য সহযোগিতা করার সিদ্ধানত্ম দেন। কিন’ বিবাদী আতাব আলী গংরা সালিশ অমান্য করে জোরকরে গভীর নলকূপের বৈদ্যুতিক মটার খুলে নিয়ে তালা লাগিয়ে দেয়। এ ঘটনায় নলকূপের ম্যানেজার লোকমান হোসেন সরকার বিজ্ঞ আদালতে মামলা দায়ের করেন। আদালত মুক্তাগাছা থানা পুলিশকে তদনেত্মর নির্দেশ দেন। পুলিশ আসামীদের দ্বারা প্রভাবিত হয়ে মনগড়াভাবে বিবাদীদের পক্ষে রিপোর্ট দেন বলে বাদি জানান। এতে গভীর নলকূপটি চালু হওয়ার দীর্ঘ সুত্রীতার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

 

সর্বশেষ আপডেটঃ ৯:২২ অপরাহ্ণ | মে ১১, ২০১৫