| রাত ৯:২০ - সোমবার - ২৮শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ - ১৩ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ - ৩রা জমাদিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি

রেগে যাওয়ার আগে ভাবুন একবার…

অনলাইন ডেস্ক | ৫ মে ২০১৫, মঙ্গলবার:

অভিমানী মনটা হঠাৎই বেঁকে বসে, মেজাজ উঠে যায় তুঙ্গে। কখনো যুক্তিসঙ্গত কারণে আবার কখনো তুচ্ছ কথায়। কোনো কিছু বুঝে ওঠার আগেই সৃষ্টি হয় বাজে পরিস্থিতি। ক্ষণিকের এই উত্তেজনা নষ্ট করে দেয় সুন্দর সম্পর্কগুলো। তাই দরকার নিজেকে শুধরে নেয়া। তাছাড়া, ব্যক্তিত্বকে যদি বিবেচকের সারিতে দাঁড় করাতে চান তবে অবশ্যই রেগে যাওয়া নয়। রেগে যাওয়ার আগে ভাবুন আরও একবার। আর তাই-

* রাগের প্রথমে নিজেকে শান্ত করার চেষ্টা করুন। কোনো কথা নয়, চুপ করে নিজেকে বোঝানোর চেষ্টা করুন।

* গভীরভাবে শ্বাস নিন। তারপর রাগের কারণ নিয়ে ভাবুন কিছুক্ষণ। রাগ না করার পেছনে যুক্তি বের করতে চেষ্টা করুন। আস্তে আস্তে রাগ কমে আসবে।

* রাগে মাথায় যা খুশি তাই বলে ফেলি, করেও চলি। কিন্তু পরক্ষণেই অসুবিধায় পড়তে হয় সবাইকে। তাই রেগে গেলে বেশি কথা বলা নয় চুপ করে থাকাই শ্রেয়।

* রাগ হওয়ার পর কথা যদি বলতেই হয় তাহলে আগে চিন্তা করুন, তারপর কথা বলুন।

* কোনো ব্যাপারে আপনার মেজাজ খারাপ হয় সে ব্যপারগুলো এড়িয়ে যাওয়ার চেষ্টা করুন। নাহলে ব্যপারটিকে সহজ ভাবে সমাধান করার চেষ্টা করুন।

* রাগ উঠলে জোরে মিউজিক শুনতে পারেন। অন্যমনস্ক হয়ে রাগ আস্তে আস্তে কমে যেতে পারে।

* রাগ কমে গেলে তারপর সে ব্যপারটি নিয়ে কথা বলে সমাধান বের করার চেষ্টা করুন।

* রাগের সময় ধীরে ধীরে ব্যায়াম করার চেষ্টা করুন। ব্যায়াম আপনার পেশীকে শিথিল এবং মনকে শান্ত করবে।

* যুক্তি দিয়ে নিজেকে বোঝানোর চেষ্টা করুন। রেগে গেলে শুধু নিজেরই ক্ষতি হবে, অন্যের কোন ক্ষতি হবে না- এমন চিন্তা আনতে পারলে রাগ এমনিতেই কমে আসবে।

সর্বশেষ আপডেটঃ ৫:২২ অপরাহ্ণ | মে ০৫, ২০১৫