| সকাল ১০:৫৯ - বুধবার - ১০ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ - ২৬শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ - ১১ই মহর্‌রম, ১৪৪৪ হিজরি

করোনার লক্ষণ নিয়ে সহকর্মীর মৃত্যু নিয়ে কলকাতায় পুলিশের বিক্ষোভ, থানায় ভাংচুর

লোক লোকান্তরঃ  ভারতের পশ্চিমবঙ্গে শ্বাসকষ্ট এবং করোনাভাইরাসের অন্যান্য লক্ষণ নিয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন এক পুলিশ সদস্যের মৃত্যু হয়েছে সোমবার। পুলিশ কর্মীর এই মৃত্যুকে কেন্দ্র করে উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে গাফিলতির অভিযোগ তুলে বিক্ষোভ করেছেন মৃত কনস্টেবলের সহকর্মীরা।

 

বেশ কয়েকজন বিক্ষোভকারী গড়ফা থানায় ভাঙচুর করেন। তাদের দাবি, ওই কনস্টেবলকে আরো উন্নত চিকিৎসার জন্য বেসরকারি হাসপাতাল নিয়ে যাওয়া উচিত ছিল।

 

বেশ কিছুদিন ধরেই শ্বাসকষ্টের সমস্যায় ভুগছিলেন ৪০ বছর বয়সী ওই পুলিশ কনস্টেবল। বিক্ষোভকারীদের দাবি, রোববার তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

 

বিক্ষোভরত এক পুলিশ কর্মকর্তা বলেন, ‘তাকে গুরুতর শ্বাসকষ্ট নিয়ে সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়, যদিও তার মধ্যে করোনার লক্ষণ ছিল। আমি মনে করি, পরিস্থিতি খারাপ হওয়ার আগেই তার আরো যত্ন হওয়া উচিত ছিল। কেন তাকে কোনো বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়নি।’

 

বিক্ষোভকারীদের থামাতে গড়ফা থানায় ছুটে যান পদস্থ পুলিশ কর্মকর্তাদের একটি দল। তারপর বিক্ষোভ উঠে যায়।

 

এখন পর্যন্ত অন্তত সাতজন পুলিশ কর্মকর্তার শরীরে করোনাভাইরাস পজিটিভ ধরা পড়েছে।

 

গত সপ্তাহে, এজেসি বোস রোডের পুলিশ প্রশিক্ষণ স্কুল বিল্ডিংয়ে বিক্ষোভ করেন প্রায় ৫০০ পুলিশ কর্মী। তাদের দাবি, যেসব এলাকায় বদলি করা হয়েছে, সেখানে করোনা আক্রান্তের সংস্পর্শ আসার সম্ভাবনা প্রবল।

 

পুলিশ কর্মীদের অভিযোগ ও দাবি খতিয়ে দেখার আশ্বাস দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পাশাপাশি পুলিশকর্মীদের সবচেয়ে ভালো স্বাস্থ্য পরিষেবা দেয়ার প্রতিশ্রুতিও দেয়া হয়। সূত্র : এনডিটিভি

 

প্রতীকী ছবি

সর্বশেষ আপডেটঃ ১২:২৬ অপরাহ্ণ | মে ২৬, ২০২০