| দুপুর ১২:৩৫ - সোমবার - ১লা আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ - ১৭ই শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ - ২রা মহর্‌রম, ১৪৪৪ হিজরি

গফরগাঁওয়ে সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা তোরণ ভেঙ্গে গুড়িয়ে দিয়েছে

গফরগাঁও প্রতিনিধি, ৮ অক্টোবর ২০১৫, বৃহস্পতিবার,
ময়মসিংহের গফরগাঁওয়ে আদালতে বিচারাধীন থাকার পরেও এক ব্যক্তির বাড়িতে নির্মিত তোরণ সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা দেশীয় অস্ত্র নিয়ে ত্রাস সৃষ্টি করে ভেঙ্গে গুড়িয়ে দিয়েছে। ঘটনাটি ঘটে উপজেলার পাঁচবাগ ইউনিয়নের দীঘিরপাড় গ্রামে।
জানা যায়, গত এক বছর পূর্বে উপজেলার দীঘিরপাড় গ্রামের আতাউর রহমান ফুয়াদ তার বসত বাড়ির সামনে নিজস্ব সম্পতিতে বাড়ির সৌন্দর্য বৃদ্ধির জন্য একটি তোরণ নির্মাণ করেন। পরবর্তীতে তার প্রতিবেশি আফাজ উদ্দিন নির্মীত তোরণের জায়গাটি ইট-বালি ফেলে দখল নিতে চাইলে আতাউর রহমান ময়মনসিংহের এডিএম কোর্টে ১৪৪ ধারা মামলা দায়ের করেন। মামলার প্রেক্ষিতে আদালত গফরগাঁওয়ের এসিল্যান্ডকে জায়গার মূল মালিক কে তা তদন- করে আদালতের প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেন। এসিল্যান্ড তদন- শেষে জমিটি আতাউর রহমানের বলে আদালতে একটি প্রতিবেদন দাখিল করেন। পরবর্তীতে প্রতিবেশি আফাজ উদ্দিন একই আদালতে তোরণটি ভেঙ্গে ফেলার জন্য মামলা দায়ের করেন। আদালত কারন দর্শানোর নোটিশ দিলে তিনি লিখিত জবাব দাখিল করেন। পরে দুই পক্ষের বক্তব্য শুনে আদালত তোরণটি অপসারনের জন্য আদেশ দেন।
এ অবস’ায় আতাউর রহমান ফুয়াদ উক্ত আদেশের বিরুদ্ধে জেলা ও দায়রা জজ আদালতে রিভিশন মোকদ্দমা দায়ের করেন। এ মামলা দায়েরের পর দায়রা জজ আদালত নিন্ম আদালতের নথি তলব করে আগামী ৩ নভেম্বর পরবর্তী তারিখ ধার্য করে। এ অবস’ায় গত বুধবার দুপুরে আফাজ উদ্দিনের নেতৃত্বে আনোয়ার মাহমুদ, ইকবাল, বায়েজিদ, মোনওয়ার, শোয়াইব, আসাদুল ও আশরাফুলসহ অজ্ঞাত আরো ২০/২৫ জন লোক দেশীয় অস্ত্র নিয়ে ত্রাস সৃষ্টি করে তোরণটি ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেয়।
এ বিষয়ে পাগলা থানার ওসি চাঁন মিয়া বলেন, তোরণ ভাঙ্গার ব্যাপারে আদালতের নির্দেশ অবগত থাকলেও পরবর্তীতে দায়রা জজ আদালতে রিভিশন মোকদ্দমা দায়েরের ব্যাপারে আমি অবগত নই।

সর্বশেষ আপডেটঃ ৪:৫৫ অপরাহ্ণ | অক্টোবর ০৮, ২০১৫