| রাত ৮:৫৩ - মঙ্গলবার - ৬ই ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ - ২১শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ - ১১ই জমাদিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি

প্রেমিকের সঙ্গে একই ডালে ঝুলে আত্মহত্যা প্রবাসীর স্ত্রীর

অনলাইন ডেস্ক, ০৯, জুন, মঙ্গলবার,

গাজীপুরের কালীগঞ্জে দীর্ঘদিন প্রেমের পর প্রেমিক যুগল আম গাছের একই ডালে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করেছে। এই ঘটনায় থানায় অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে। পুলিশ লাশ দুটি উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট তৈরী করে ময়না তদন্তের জন্য শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার জাঙ্গালীয়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মৃত ফজলুল হক মোল্লার আম গাছে মঙ্গলবার সকালে স্থানীয় রিকশা চালক প্রেমিক আলমগীর ও প্রেমিকা লায়লা আক্তারের ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পায় এলাকাবাসী। পরে তারা স্থানীয় মেম্বার আব্দুল বাতেনকে বিষয়টি অবহিত করলে তিনি পুলিশকে খবর দেয়। পরে কালীগঞ্জ থানা পুলিশের এস আই নাজমুলের নেতৃত্বে পুলিশদল ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ দুটি উদ্ধার করে হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। স্থানীয়রা আরো জানায়, দীর্ঘদিন ধরে ওই গ্রামের প্রবাসী জসিম প্রধানের স্ত্রী লায়লা বেগমের (৩০) সঙ্গে একই গ্রামের মোনতাজ উদ্দিনের রিকশা চালক ছেলে আলমগীরের (২৪) পরকীয়া প্রেম চলছিল। তাদের প্রেমের সম্পর্ক গভীর হলে কয়েকদিন আগে তারা দুজনে বাড়ি ছেড়ে অন্যত্র পালিয়ে যায়। সোমবার স্ত্রী হিসাবে লায়লাকে নিয়ে আলমগীর তার বাবার বাড়িতে ওঠে। বাড়ির লোকজন তাদের এই সম্পর্ক মেনে নিতে রাজী হননি। এরপরই সকালে তাদের দুজনের লাশ গাছে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখা যায়। ধারণা করা হচ্ছে, তাদের নতুন জীবনের সম্পর্ককে কেউ মেনে না নেয়ায় অভিমান করে একই সাথে আত্মহত্যার পথ বেছে নেয়।
এ ব্যাপারে কালীগঞ্জ থানার এস আই নাজমুল বলেন, প্রেমের টানে তারা সম্প্রতি ঘরও ছাড়ে। এ ঘটনায় জসিম প্রধানের পরিবারের লোকজন থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। সাধারণ ডায়েরি সূত্রে দুই পরিবারের সঙ্গে কথা বলেন থানা পুলিশ। পরে দুই পরিবারের পক্ষ থেকে লায়লা ও আলমগীরকে বিষয়টি নিয়ে চাপ দেয়। এই ঘটনার পর গ্রামের আম গাছের ডালে ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে তারা। পরে তারা ঘটনাস্থলে গিয়ে আম গাছ থেকে লাশ দুটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়। দুপুর ১টায় লাশ ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমেদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়। দুই সন্তানের জননী লায়লা একই উপজেলার বক্তারপুর ইউনিয়নের ব্রাহ্মণগাঁও গ্রামের আব্দুল লতিফের মেয়ে।

সর্বশেষ আপডেটঃ ১০:১৬ অপরাহ্ণ | জুন ০৯, ২০১৫